Gariahat_Sangeet_Mela_Alt_Bangla
- বিজ্ঞাপন -

ভোটের দামামা ইতিমধ্যেই বেজেছে পশ্চিমবঙ্গে। সাথে বিগত প্রায় ১ বছরের অচলাবস্থা এবং বিশ্বব্যাপী মারণভীতি কাটিয়ে একঝাঁক শিল্পী সমাবেশে শুভ সুচনা হলো “গড়িয়াহাট সঙ্গীত মেলা – আহারে বাহারে”র। যৌথভাবে উদ্বোধন করলেন প্রসিদ্ধ বাদ্যযন্ত্র বাদক পণ্ডিত শ্রী মল্লার ঘোষ মহাশয়, কোলকাতা মিউনিসিপ্যালিটির এম এম আই সি শ্রী দেবাশিষ কুমার, বিশিষ্ট নৃত্যশিল্পী শ্রীমতি ইন্দ্রাণী গাঙ্গুলী, জনপ্রিয় গায়ক শ্রী ঋষি চক্রবর্তী, টলিউড – বলিউড খ্যাত অভিনেতা শ্রী রাজদীপ চক্রবর্তী, অভিনেত্রী চিত্রালী দাস, শ্রী সেনগুপ্ত ও আরো অনেকে।

আরো পড়ুনঃ বিধবা মহিলার সাথে প্রতারণা ৪০ লাখেরও বেশী, মাণষিক যন্ত্রণা দিয়ে খুন করার চেষ্টা মামা – ভাগ্নীর ভুয়ো পরিচয়ে

- বিজ্ঞাপন -

শ্রী দেবাশিষ কুমার উদোক্তাদের অভিনন্দন জানান এমন এক ভাবনা গড়িয়াহাটের মতো অঞ্চলে উপস্থাপন করার জন্য যে অঞ্চল শুধুমাত্র রকমারী সামগ্রী কেনাবেচার অন্যতম স্থল। শ্রী কুমার আরো বলেন যে এই অনুষ্ঠানের মুল লক্ষ্য হলো সংস্কৃতি কে বাঁচিয়ে রাখার অন্যতম প্রয়াস আর আজ সেই প্রয়াসের সুচনা হলো। পরবর্তীতে হয়তো আরো অনেক উদ্যোক্তাই এই অঞ্চলকে বেছে নেবেন গান মেলার জন্য।

আরো পড়ুনঃ ভুয়ো ইনকাম ট্যাক্স অফিসারের নারী সঙ্গিনীর একাউন্ট ফ্রিজড ইনকাম ট্যাক্সের চিঠির জন্য – স্বপরিবারে প্রতারণার ব্যাবসা

পণ্ডিত মল্লার ঘোষ উদ্যোক্তাদের সাধুবাদ জানিয়ে বলেন কোভিড এর কারণে জনজীবন স্তব্ধ হয়ে থাকলেও সংস্কৃতি কিন্তু থেমে থাকেনি। আজ সঙ্গীতমেলার শুভ সুচনার মধ্য দিয়ে আরো এক নতুন অধ্যায়ের শুরু হলো। ভবিষ্যত প্রজন্মকে এগিয়ে নিয়ে যাবার জন্য এমন পথকে প্রসস্থ করতে এবং সঙ্গীত মেলা কে সারা বাংলা ব্যাপী ছড়িয়ে দিতে তিনি উদ্যোক্তাদের সাথে যথাসম্ভব সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেবেন।

আরো পড়ুনঃ কোটী টাকা তছরুপী – মিথ্যা অপহরণের মামলা ফাঁস করল কলকাতা পুলিশ। #শেষ_অনির্বাণ

সাহায্যের প্রতিশ্রুতি দেন সৃষ্টি ডান্স একাডেমীর কর্ণধার শ্রীমতি ইন্দ্রাণী গাঙ্গুলী সহ উপস্থিত লোকসঙ্গীত শিল্পী ভাষ্কর রায় এবং গৌতম দে, অভিনেত্রী শ্বেতা ঘোষ দাস, চিত্রালী দাস, শ্রী সেনগুপ্ত, অভিনেতা রাজদীপ সরকার, বাচিক শিল্পী আবীর সেনগুপ্ত, শ্রীমতি মল্লিকা ঘোষ সকলেই। নৃত্য পরিবেশন করেন মিষ্টি রায় ও পৌষালী রায়চৌধুরী।

আরো পরুনঃ  সফেদ ঝুট বিজেপি র। সরানো হল বিজ্ঞাপন, কুলুপ কর্মী সমর্থকদের মুখে... ঘর না পেলেও রাতারাতি ফেমাস লক্ষী দেবী।

আরো পড়ুনঃ মমতা ব্যানার্জী র পর কে হবেন বাংলার মুখ? কে কোন স্থানে অবস্থান করছেন?

সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের সাথে সাথে গড়িয়াহাট সঙ্গীত মেলার অন্যতম আকর্ষণ হলো হ্যান্ডলুম এবং হ্যান্ডিক্রাফট এর রকমারী সম্ভার। সাথে ওয়াও মোমো ও আরো অনেক খাদ্যসম্ভার, জুয়েলারী, রকমারী শাড়ী ইত্যাদির স্টল। গান বাজনা, কেনাকাটা, খাওয়া দাওয়ার সাথে যদি নিশুল্ক স্বাস্থ্য পরিসেবা পাওয়া যায়, তাহলে বাঙালিকে আর পায় কে? তার উপর উপরি পাওনা হিসেবে রয়েছে প্রতিদিন লাকি ড্র জেতার সুযোগ। মেলা প্রাঙ্গনে নিশুল্ক স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য বাঘাযতীন এর আইরিশ হাসপাতালের টিম হাজির থাকবে প্রতিদিন।

আরো পড়ুনঃ ১০০ বছর আগে শুরু হয়েছিল স্বদেশী ‘মার্গো’ সাবানের জয়যাত্রা , নেপথ্যে ছিলেন একজন বাঙালি

২৬ নম্বর হিন্দুস্থান পার্ক এর বনিক টাওয়ারে ঢুকতেই ডান হাতের খোলা অঞ্চলে আয়োজিত গড়িয়াহাট সঙ্গীত মেলা – আহারে বাহারে আগামী ২৩ শে ফেব্রুয়ারী অবধি রোজ দুপুর ১২ টা থেকে রাত্রি ৮ টা অবধি খোলা থাকবে। যেখানে প্রবেশ করতে কোনো প্রবেশমূল্য নির্ধারিত থাকছে না বলেই জানিয়েছেন উদ্যোক্তারা।

- বিজ্ঞাপন -