Tuesday, June 15, 2021

স্বাস্থ পরিষেবা ক্ষেত্রের বিকাশ – অমিত গুপ্ত

জনগন অন্যান্য বিষয়ের সাথে আধুনিক চিকিৎসা সরঞ্জাম ও আরামদায়ক ব্যবস্থা ভোগ করতে পারছে সাথে সাথে কর্পোরেট ক্ষেত্রগুলিতে স্বাস্থ্য বিমা ক্ষেত্রের একত্রে প্রবেশের ফলে সাধারন মানুষেরা বিশাল চিকিৎসা ব্যয় থেকেও অনেক রেহাই পেয়েছে।

অবশ্যই পরুনঃ

সত্যটা মনে হয়,পূর্ববর্তী অবস্থা থেকে স্বাস্থ্য সেবা সংক্রান্ত নীতি প্রক্রিয়াগুলি বিভিন্ন ধাপে ধাপে তাদের অর্থনৈতিক সংস্থানের আলোকে নিজ নিজ ক্ষমতার সীমা অনুযায়ী রূপায়্ন করে চলেছে। আনন্দের বিষয় হ’ল সচেতনতা, গুরুত্ব, স্বাস্থ্যপরিষেবার ব্যাতাবরন ব্যবস্থার বিকাশ এখনও নিরন্তর চলছে।

আরো পরুনঃ  মধ্যযুগের সাত টি ফেক নিউজ - ডাঃ তমাল দাশগুপ্ত

স্বাস্থ্য পরিষেবার প্রক্রিয়াতে উন্নততর প্রযুক্তির অন্তর্ভুক্তির মাধ্যমে আরো উন্নততর স্বাস্থ্য পরিষেবার ব্যবস্থার নিমিত্তে জাতীয় তহবিলের বরাদ্দ বৃদ্ধিও বিশ্বের অনেক দেশের জাতীয় স্বাস্থ্য নীতিতে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। কর্পোরেট সেক্টর গুলির জন্য স্বাস্থ্য পরিষেবার ক্ষেত্রটি উন্মেচিত হবার পর তাদের প্রবেশের ফলে বেশ কিছু উন্নততর প্রযুক্তি পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন পরিবেশের সাথে বিশেষজ্ঞ চিকিত্সক ও একনিষ্ঠ সেবা পরায়ন সেবিকা ও কর্মী নিয়োগের মাধ্যমে উন্নততর জনসাস্থ্য বিকাশের পথকে সুগম করেছে।

যদিও কর্পোরেট সেক্টর পরিচালিত সংস্থা গুলিতে চিকিত্সা বাবদ ব্যয় যথেষ্ট বেশী যা প্রায় ক্ষেত্রেই নিন্মবিত্ত মানুষদের আয়ত্তের বাইরে হয়ে গ্যাছে। তবে এটা বাস্তব সত্য যে দেশগুলিতে স্বাস্থ্য সেবার বিস্তার শুধুমাত্র সরকারী ক্ষেত্র থেকে বে সরকারী দিকে স্থানান্তরিত করে সরকারী সেবাক্ষেত্রের ওপর কিছুটা চাপ কমেছে ও সরকারকে স্বস্তি দেওয়া হয়েছে।

তাই, কর্পোরেট সেক্টরের হাতে এই দায়ভারের অংশীদারীত্ত দিয়ে যে পরিবর্তনটি হয়েছে তার সুফল ভোগ অবশ্যই জনগন করছেন যেখানে জনগন অন্যান্য বিষয়ের সাথে আধুনিক চিকিৎসা সরঞ্জাম ও আরামদায়ক ব্যবস্থা ভোগ করতে পারছে সাথে সাথে কর্পোরেট ক্ষেত্রগুলিতে স্বাস্থ্য বিমা ক্ষেত্রের একত্রে প্রবেশের ফলে সাধারন মানুষেরা বিশাল চিকিৎসা ব্যয় থেকেও অনেক রেহাই পেয়েছে।

আরো পরুনঃ  এক্সরের রেট ২৫০/- হলেও মোট খরচ ৭৫০/- ব্যবহৃত পিপিই কিটের নামে অবাধ লুট গড়িয়ায়
আরো পরুনঃ  রাজনীতিতে ভোট রঙ্গ - অমিত গুপ্ত

যদিও স্বাস্থ্য সেবা নীতির আদর্শ গঠন ও সংস্কার এখনও প্রক্রিয়াধীন রয়েছে যা আমি উপরে উল্লেখ করেছি। তবে স্বল্প বিকাশ মান সম্পন্ন দরিদ্র দেশগুলি অত্যন্ত সীমাবদ্ধ আর্থিক সংস্থানের ফলে এই স্বাস্থ প্রকল্পগুলি পুরোপুরি সম্পন্ন করার ক্ষেত্রে অনুন্নত দেশ গুলি পিছিয়ে পরছে। যদিও খুবই কম পরিমাণে হলেও তবুও তাদের স্বাস্থ্য পরিষেবার একমাত্র মাধ্যম হ’ল ডব্লুএইচওর (WHO) কাছ থেকে কিছু স্বাস্থ্য সেবা সহায়তা প্রাপ্তি যার মধ্যে ন্যূনতম অন্তত পক্ষে ওআরএস জাতীয় ওষুধ ইত্যাদির সরবরাহ পাচ্ছেন।

যার মাধ্যমে ডাইরিয়ার আক্রান্ত সাধারণ মানুষ ও শিশুদের জীবন বাঁচানো সম্ভব হচ্ছে। সাধারনতঃ ডাইরিয়ায় আক্রান্ত হওয়ার কারনে অনুন্নত দেশ গুলিতে বহু শিশুরই অকাল মৃত্যু হয়।।

- Advertisement -

আরো প্রতিবেদন

একটি মতামত জানান

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে
আরো পরুনঃ  ভারতীয় রাজনীতির আঙ্গিনায় ক্রিমিনাল দের অধিপত্য

- Advertisement -

সদ্য প্রকাশিতঃ